pic_ms_iacd7_16_en.jpg

খারাপ কাজের মূল্যায়ন সাথে সাথে...ভালো কাজের মূল্যায়ন মরণের পরে!

User Rating:  / 13
PoorBest 

বৈচিত্র্যময় এই পৃথিবী বড়ই অদ্ভুত,,,

জীবন পরিচালনার জন্য মানুষকে অনেক কিছু করতে হয়। যে যেমন ভাবে পারে,  সেভাবে সে তার জীবিকা নির্বাহ করে। পেশাগত জীবনে পেশার মান বজায় রাখার জন্য পেশাগত কর্মদক্ষতা বৃদ্ধি করে।

কেউ তার ভালো কাজের মাধ্যমে নিজেকে পরিবিষ্ট করতে চাইলেও তার মূল্যায়ন কম থাকে বাহ্যিক ভাবে।  একটি অফিসে একজন কর্মকর্তা ভালো হলে সে টিকে থাকতে পারে না। কারন, অন্য কর্মকর্তাদের কাছে সে দৃশ্যগত শত্রু হিসেবে বিবেচিত।

সুতরাং,  অন্যরা লেগে থাকে তাকে সরানোর জন্য। তখন অনেকের চাপে পড়ে তাকে বাধ্য করা হয়,  হয়তো অনিয়ম করো নতুবা ভাগো। এটি বর্তমানের সার্বিক দৃশ্যপট।  

সমাজে অনেক মানুষ আছে,  যারা কিছু ভালো কাজ করতে চায় , সমাজের পরিবর্তন চাই।কিন্তু,  কিছু লোক আছে যারা নেতিবাচক প্রভাব বিস্তার করে এবং ভালো কাজের সম্মান দিতে বোঝে না।

সমাজের বেশিরভাগ লোকই কিছুই ভাবে না,  তারা মনে করে ঝামেলা হবে,  দরকার নেই,  যেমন আছি তেমন ভালো।

তারা,  ভালো কাজের পক্ষেও থাকে এবং খারাপ কাজে উৎসাহ প্রদান করে।

যখন কেউ মৃত্যুবরণ করে এবং মৃতুর পূর্বে  জীবনে ভাল কাজ  করে থাকে তবে, লোকেরা বলাবলি করে লোকটা খুবই ভালো লোক ছিল এবং তাকে তখন প্রয়োজন মনে করে। আমরা এখনও দেখতে পাই, যারা পূর্বে ভালো কাজের মাধ্যমে স্বচ্ছতার সাথে জীবন পরিচালনা করেছেন তাদেরকে জাতি শ্রদ্ধাভারে প্রতিনিয়ত স্বরণ করে। 

খারাপ লোক সল্পসময় মানুষের মাঝে প্রভাব বিস্তার করে। 

মোটকথা, আমাদের ভালো কাজে লেগে থাকতে হবে। ভালো কাজের সম্মান বেশি বিধায় দেরিতে আসে হয়ত অনেকের মরণের পর। মরেও আজীবন মানুষের হৃদয়ে বেঁচে থাকাই প্রকৃত সুখ । তাই, ভাল কাজে লেগে থাকুন, স্বচ্ছতার সাথে জীবন পরিচালনা করুন ইতিবাচক পরিবর্তন আসবেই।

 

Add comment

Only the commentator have the whole liability for any comment.


Security code
Refresh

Posts by Year