• header_en
  • header_bn

নির্বাচন কমিশন গঠনে অনুসন্ধান কমিটিকে স্বচ্ছতা ও নিরপেক্ষতার নীতি অনুসরণ করতে হবে: টিআইবি

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

 নির্বাচন কমিশন গঠনে অনুসন্ধান কমিটিকে স্বচ্ছতা ও নিরপেক্ষতার নীতি অনুসরণ করতে হবে: টিআইবি

০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২২: নতুন নির্বাচন কমিশন গঠনের গুরুদায়িত্ব পালনে অনুসন্ধান কমিটিকে আইন অনুযায়ী স্বচ্ছতা ও নিরপেক্ষতাকে সর্বোচ্চ প্রাধান্য দিতে হবে বলে মত প্রকাশ করেছে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)। আজ এই অনুসন্ধান কমিটি গঠনের প্রজ্ঞাপন জারি হওয়ার পর এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সংস্থাটির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, একটি নিরপেক্ষ, গ্রহণযোগ্য ও দক্ষ নির্বাচন কমিশন গঠনের পেছনে যে সাংবিধানিক চেতনা অন্তর্নিহিত এবং একে নিয়ে জনগণের যে প্রত্যাশা, তা পূরণে কোনোরকম ব্যত্যয় হওয়ার সুযোগ নেই।

 

টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ইফতেখারুজ্জামান বলেন, “কমিটির সদস্যগণের প্রতি শ্রদ্ধাভরে আমরা আবেদন করছি যে, প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্য কমিশনার পদে নিয়োগের জন্য তালিকা প্রণয়নের ক্ষেত্রে তাঁরা যেনো এমন ব্যক্তিদের নাম বিবেচনায় নেন, যাঁরা তাঁদের ব্যক্তি ও পেশাগত জীবনে সততা, দলনিরপেক্ষতা, ন্যয়পরায়নতা, বস্তুনিষ্ঠতা, সৎসাহস ও গ্রহণযোগ্যতার জন্য সুপরিচিত। একইসঙ্গে, মনোনীত ব্যক্তিদের যেনো কোনোভাবেই নৈতিকস্খলন, দুর্নীতি ও ঋণখেলাপির মতো অপরাধের সাথে সংশ্লিষ্টতা না থাকে, তা নিশ্চিত করা অপরিহার্য।”



এছাড়া, প্রস্তাবিত নামের পুরো তালিকা জনগণের জ্ঞাতার্থে প্রকাশ করার বিষয়টিও অনুসন্ধান কমিটি নিশ্চিত করবে বলে টিআইবি আশা প্রকাশ করেছে।



টিআইবির নির্বাহী পরিচালক বলেন, “অনুসন্ধান কমিটির কাজ সম্পর্কে আইনে বলা হয়েছে, এই কমিটি স্বচ্ছতা ও নিরপেক্ষতার নীতি অনুসরণ করে দায়িত্ব পালন করবে। সেটা যেনো নিশ্চিত করা হয়, টিআইবি তার ওপরেই সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দিচ্ছে। আমরা বিশ্বাস করতে চাই, দেশের সর্বোচ্চ দায়িত্বশীল বিভিন্ন পদে আসীন চারজন এবং দুজন বিশিষ্ট নাগরিকের সমন্বয়ে গঠিত এই কমিটি তাঁদের পদ ও অবস্থানের সম্মান রক্ষা করেই তাঁদের ওপর অর্পিত গুরুদায়িত্ব পালন করবেন।”

 

গণমাধ্যম যোগাযোগ:

 

শেখ মন্জুর-ই-আলম

পরিচালক (আউটরিচ অ্যান্ড কমিউনিকেশন)

মোবাইল: ০১৭০৮৪৯৫৩৯৫

ই-মেইল:  This email address is being protected from spambots. You need JavaScript enabled to view it.