• header_en
  • header_bn

সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক), ঝালকাঠি - এর সভাপতি ও প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্য হেমায়েত উদ্দিন হিমু’র মৃত্যুতে আমরা শোকাহত

সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক), ঝালকাঠি - এর সভাপতি ও প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্য 

হেমায়েত উদ্দিন হিমু’র মৃত্যুতে আমরা শোকাহত

 

ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি) এর অনুপ্রেরণায় গঠিত সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক) , ঝালকাঠি - এর সভাপতি ও প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্য হেমায়েত উদ্দিন হিমু (জন্ম: ২৫ অক্টোবর ১৯৬২) এর মৃত্যুতে টিআইবি পরিবার গভীরভাবে শোকাহত। ১১ মার্চ ২০২২ নিজ বাড়িতে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়লে তাঁকে ঝালকাঠি সদরহাসপাতালে নেওয়া হয়।পরবর্তীতে কর্তব্যরত চিকিসকের পরামর্শে বরিশালশের--বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সিসিইউতে ভর্তি করা হলে সেখানে চিকিসারত অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন।প্রতিষ্ঠাকাল ২৯ নভেম্বর ২০০৫ থেকে সনাক, ঝালকাঠি এর সাথে সম্পৃক্ত হয়ে হেমায়েত উদ্দিন হিমু একাধিকবার সভাপতির দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি স্থানীয় পর্যায়ে দুর্নীতিবিরোধী আন্দোলন পরিচালনায় গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখেছেন।

 

বিশিষ্ট সাংবাদিক হেমায়েত উদ্দিন হিমু মৃত্যুর পূর্ব পর্যন্ত সনাক, ঝালকাঠি এর পাশাপাশি বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সাথে সম্পৃক্ত ছিলেন। তিনি বাংলাদেশ টেলিভিশনের ঝালকাঠি জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কর্মরত ছিলেন। এছাড়া তিনি দীর্ঘদিন ঝালকাঠি প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। হেমায়েত উদ্দিন হিমু সম্প্রতি ঝালকাঠি প্রেসক্লাবের আজীবন সদস্য হিসেবে অন্তর্ভুক্ত হন। তিনি জেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটি (দুপ্রক) এর সদস্য হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেছেন। হেমায়েত উদ্দিন হিমু মৃত্যুকালে স্ত্রী, দুই ছেলেসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

দুর্নীতিবিরোধী সামাজিক আন্দোলনে হেমায়েত উদ্দিন হিমু’র অবদান আমাদের জন্য অনুপ্রেরণার উৎস হিসেবে কাজ করবে।টিআইবি’র সাধারণ পর্ষদ, ট্রাস্টি বোর্ড, সকল কর্মী, দেশের ৪৫টি এলাকার সনাক, স্বজন, ইয়েস, ইয়েস ফ্রেন্ডস, ঢাকা ইয়েস, ওয়াইপ্যাক এর সদস্যসহ সকলের পক্ষ থেকে আমরা তাঁর বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করছি এবং শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করছি।